শাহজাদপুরে আধিপত্য বিস্তার নিয়ে দু’গ্রুপের সংঘর্ষে নিহত-১, আহত ১০।

শাহজাদপুর(সিরাজগঞ্জ)প্রতিনিধি:-

সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুর উপজেলার রতনকান্দী গ্রামে গতকাল শনিবার দুপুরে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষে উভয়পক্ষের কমপক্ষে ১০জন আহত হয়েছে। আহতদের মধ্যে ওসমান গণি(৬৫)নামের এক বৃদ্ধার মৃত্যু হয়েছে।

 পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, হাবিবুল্লাহনগর ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল মজিদ গ্রুপের সাথে একই গ্রামের তারাব আলী সরকারের লোকজনের গ্রাম্য সমাজ  ভাগকে কেন্দ্র করে বাক বিতন্ডা শুরু হয়। এ নিয়ে বেশ কয়েকদিন ধরে উভয়পক্ষের মধ্যে উত্তেজনা চলে আসার প্রেক্ষিতে শনিবার তারাব আলী সরকারের লোকজন মজিদ চেয়ারম্যানের সমর্থক শামসুল আলম ও তার ছেলেদের উপর হামলা করলে উভয়পক্ষ  লাঠিসোটা, দেশি অস্ত্রসস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পরে। পরে শাহজাদপুর থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। সংঘর্ষ চলাকালে  মজিদ চেয়ারম্যান গ্রুপের ওসমান গণি (৫৫) শামসুল আলম (৫০) রহিমা খাতুন (৫০) শরিফ উদ্দিন (২৫) মারাত্মক আহত হয়। আহতদেও মধ্যে শামসুল আলমের অবস্থা আশংকাজনক। তাদের সিরাজগঞ্জ সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। অপরদিকে তারাব আলী সরকারের গ্রুপের হোসেন আলী (৫০) পালো শেখ (৩৫) আলম মিয়া (৪০) শুকুর আলী ৪৫) আহত হয়েছে। এদের মধ্যে হোসেন আলীর অবস্থা আশংকাজনক। তাদেরকে বেড়া ও পাবনার বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এঘটনায় পুলিশ প্রতিপক্ষের প্রধান তারাব আলী সরকারকে গ্রেফতার করেছে। 

 এ ব্যাপারে ইউপি চেয়ারম্যান  ও আওয়ামীলীগ নেতা আঃ মজিদ জানান, অধিপত্য নিয়ে নয় ,রাজনৈতিক কারণে বিএনপির সন্ত্রাসীরা আওয়ামীলীগের উপর হামলা করেছে। অপরদিকে উপজেলা যুবলীগ নেতা এনামুল হক হিরা জানান, স্থানীয় দ্বন্দ্বের জের ধরেই এই সংঘর্ষ হয়েছে। এটাকে রাজনৈতিক ঘটনা হিসেবে চালিয়ে কেউ ফায়দা নিতে চাচ্ছে। এটা অত্যন্ত দুঃখজনক।

পাঠকের মন্তব্য
আরো পড়ুন