নিয়ম নীতি না মেনে এমপিও ভুক্তির অভিযোগে দেউলমুড়া এন আর টেকনিক্যাল ইন্সটিটিউটে দুদকের অভিযান

শুভ কুমার ঘোষ, সিরাজগঞ্জঃ

ভুল ও মিথ্যা তথ্য উপস্থাপন করে, নিয়ম নীতি না মেনে এমপিও ভুক্ত হয়েছে এমন অভিযোগের ভিত্তিতে সিরাজগঞ্জের রায়গঞ্জ উপজেলার দেউলমুড়া এন.আর টেকনিক্যাল ইন্সটিটিউটে দুদকের তিন সদস্য বিশিষ্ট একটি তদন্ত দল অভিযান পরিচালনা করেছেন। সোমবার (২ ডিসেম্বর) দুপুর দুইটার দিকে এই তদন্ত দল প্রতিষ্ঠানটি পরিদর্শন করেন ও কাগজপত্র, ভবন, ছাত্র-ছাত্রী, ও পাঠদানের কিছু বিষয়ে প্রতিষ্ঠান কতৃপক্ষের বক্তব্য নেন। এমপিও ভুক্ত হবার পর থেকেই শ্রেণিকক্ষ, ছাত্র-ছাত্রী, বসার ব্যাবস্থা ও পাঠদান সহ অনেক বিষয় নিয়ে আলোচনা সমালোচনা চলতে থাকে প্রতিষ্ঠানটি নিয়ে। গণমাধ্যমেও নানান বিষয়ে সংবাদ প্রকাশ হয়। যা দুদকের নজরে আসাতেই এমন অভিযান বলে জানা গেছে। সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, দুদকের পাবনা আঞ্চলিক কার্যালয় থেকে তিন সদস্যের একটি প্রতিনিধি দল প্রতিষ্ঠান টি পরিদর্শন করছেন ও নানান বিষয়ে প্রতিষ্ঠান কতৃপক্ষের সঙ্গে কথা বলছেন, যাচাই বাচাই করছেন বিভিন্ন তথ্য।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দেয়া পাবনা কার্যালয়ের উপঃ সহকারী পরিচালক মোঃ মোয়াজ্জেম হোসেন দৈনিক গনমুক্তিকে বলেন, প্রতিষ্ঠানটি কিছু ভুল তথ্য দিয়ে ও নিয়ম নীতি না মেনে এমপিও ভুক্ত হয়েছে এমন বিষয়ে গণমাধ্যমের কিছু খবর আমাদের নজরে আসলে বিষয়টি তদন্তের জন্য আমরা এসেছি। এখান থেকে সরেজমিনে দেখে গিয়ে ও আমরা সকল তথ্য যাচাই বাচাই করে দুদকের প্রধান কার্যালয়ে পাঠানো হবে বলেও জানান তিনি। তারপর যথাযথ পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে। এবিষয়ে প্রতিষ্ঠানের অধ্যক্ষ রফিকুল ইসলাম কে প্রতিষ্ঠানে পাওয়া না গেলেও তার সহধর্মিণী ও দেউলমুড়া জি,আর টেকনিক্যাল ইন্সটিটিউটের অধ্যক্ষ মোছাঃ লুবা খাতুন বলেন, প্রতিষ্ঠান টি এমপিও হয়েছে তাই অনেকেই মিথ্যাচার করার চেষ্টা করছে। দুদকের অভিযানের বিষয়ে তিনি বলেন, উনারা কিছু তথ্য যাচাই ও প্রতিষ্ঠান পরিদর্শনে এসেছিলেন। সকল নিয়ম নীতি মেনেই প্রতিষ্ঠান টি এমপিও হয়েছে বলেই আমরা তাদেরকে জানিয়েছি।

পাঠকের মন্তব্য
আরো পড়ুন