তাড়াশে ইত্তেফাক প্রতিনিধি গোলাম মোস্তফা নারীসহ আটকের পর গণধোলাই

তাড়াশ (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধিঃ

দৈনিক ইত্তেফাক পত্রিকার সিরাজগঞ্জের তাড়াশ উপজেলা প্রতিনিধি গোলাম মোস্তফাকে নারীসহ আটকের পর গণধোলাই । রোববার সন্ধা সাতটার দিকে উপজেলার থানা গেট এলাকার দৈনিক ইত্তেফাক পত্রিকার তাড়াশ প্রতিনিধির কার্যালয়ে (নিজ অফিস) এ ঘটনা ঘটে। গোলাম মোস্তাফা উপজেলার আসানবাড়ি গ্রামের বেসরকারী সংস্থা পরিবর্তন এর পরিচালক আব্দুর রাজ্জাকের ছেলে ছেলে ও তাড়াশ প্রেসক্লাবের যুগ্ম -সম্পাদক। স্থানীরা ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, দৈনিক ইত্তেফাক পত্রিকার স্থানীয় প্রতিনিধি গোলাম মোস্তফা দীর্ঘদিন যাবত তার কার্যালয়ে বসে মাদক সেবন, সুদকারবারী ও নারীভোগসহ বিভিনś অপকর্ম চালিয়ে আসছিল। এমতাবস্থায় রোববার সন্ধ্যা ৭ টার দিকে ওই কার্যালয়ের ভেতরের রুম বন্ধ করে স্থানীয় জনৈক্য এক নারী নিয়ে অসামাজিক কার্যকলাপে লিপ্ত হয়। এ সময় স্থানীয়রা বিষয়টি টের পেয়ে দরজাভেঙ্গে ভেতরে প্রবেশ করে নারীসহ তাকে হাতেনাতে আটক করে। এ সময় উত্তেজিত লোকজন তাকে গনধোলাই দেয়।

পরে খবর পেয়ে স্থানীয় সাংবাদিক কর্মীরা ও রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ উত্তেজিত জনতার হাত থেকে গোলাম মোস্তফা সহ ওই নারীকে উদ্ধার করেন। বিষয়টি নিয়ে এলাকায় চাঞ্চলের সৃষ্টি হয়েছে। স্থানীয় অনেক সংবাদকর্মী বলেন, গোলাম মোস্তফা টাকার বিনিময়ে সুনামধন্য জাতীয় পত্রিকা দৈনিক ইত্তেফাক এর নিয়োগপত্র এনে এলাকায় চাঁদাবাজি সহ বিভিন্ন অপকর্ম চালিয়ে আসছিল। বিষয়টি খুবই দুঃখ জনক। মোস্তফা আমাদের সাংবাদিক নামের কলংক।

পাঠকের মন্তব্য
আরো পড়ুন